ইউপি’র সাবেক চেয়ারম্যান ইউনুছকে হত্যার চেষ্টা চালিয়েছে সন্ত্রাসীরা

নিজস্ব প্রতিনিধি : কক্সবাজারের পেকুয়া উপজেলার মগনামা ইউনিয়নে সাবেক চেয়ারম্যান ইউনুছকে হত্যার চেষ্টা চালিয়েছে সন্ত্রাসীরা। এ সময় তার বাড়িতে ব্যাপক ভাঙচুর করা হয়েছে।

আজ শনিবার সন্ধ্যায় মগনামা ইউনিয়নের কাকপাড়া এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। সন্ত্রাসীরা ইউনুছ চেয়ারম্যানের বাড়িতে হামলা চালিয়ে পরিবারের সদস্যদের মারধর করে তাকে কালারপাড়া এলাকার নির্জন স্থানে নিয়ে যান। সেখানে তাকে বেধড়ক পিটিয়ে চোখ তুলে নেয়ায় চেষ্টা চালায়। পরে স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে পেকুয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যান। অবস্থার অবনতি হওয়ায় তাকে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ (চমেক) হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

পেকুয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের জরুরি বিভাগের দায়িত্বরত চিকিৎসক ডা. মুজিবুর রহমান বলেন, আহতের অবস্থা গুরুতর। তার মাথা, চোখসহ শরীরের বিভিন্ন স্থানে আঘাত রয়েছে। উন্নত চিকিৎসার জন্য তাকে চমেক হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

ইউনুছ চেয়ারম্যানের স্ত্রী জান্নাতুল ফেরদৌস বলেন, সকাল থেকে সন্ত্রাসীরা আমাদের বাড়ি লক্ষ্য করে গুলিবর্ষণ অব্যাহত রাখে। এ সময় স্থানীয় প্রশাসনের সহায়তা চেয়েও আমরা পাইনি। সন্ধ্যায় মগনামা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান শরাফত উল্লাহ ওয়াসিমের নেতৃত্বে সন্ত্রাসীরা বাড়িতে হামলা চালায়। এ সময় তারা ব্যাপক ভাঙচুর চালিয়ে গুলিবর্ষণ করতে করতে আমার স্বামীকে তুলে নিয়ে যায়। পরে স্থানীয়দের সহযোগিতায় আমার স্বামীকে গুরুতর আহতাবস্থায় উদ্ধার করি।

কক্সবাজার জেলা পরিষদ সদস্য ও পেকুয়া উপজেলা যুবলীগ সভাপতি জাহাঙ্গীর আলম বলেন, ষড়যন্ত্রমূলক মামলায় দীর্ঘ ১০ মাস কারাভোগের পর শুক্রবার এলাকায় ফিরেন আওয়ামী লীগ নেতা ইউনুছ চেয়ারম্যান। তার ফিরে আসাতে প্রাণ সঞ্চার হয় অত্যাচারিত জনসাধারণের। প্রতিবাদ মুখর হয়ে ওঠে চাষিরা। চেয়ারম্যান ওয়াসিমের ক্ষমতা চলে যাচ্ছে ভেবে ফুঁসে ওঠে ওয়াসিমের সশস্ত্র বাহিনী। তাই পরিকল্পিতভাবে তার ওপর এ হামলা চালানো হয়।

তবে হামলায় জড়িত থাকার অভিযোগ অস্বীকার করেছেন চেয়ারম্যান শরাফত উল্লাহ ওয়াসিম। তার দাবি, লবণ মাঠের পলিথিন নষ্ট করায় চাষিরা তার ওপর হামলা চালিয়েছে।

পেকুয়া থানার পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) মনজুর কাদের মজুমদার বলেন, পূর্ব শত্রুতা এবং এসআলম গ্রুপের জমির দখল সংক্রান্ত বিষয়ে নিয়ে এ ঘটনা ঘটেছে বলে প্রাথমিকভাবে জানতে পেরেছি। ইউনুছ চেয়ারম্যানের ওপর হামলাকারীদের ধরতে পুলিশের অভিযান চলছে। ঘটনাস্থলে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন রয়েছে।

শেয়ার করুন